রবিবার, ২১শে অক্টোবর, ২০১৭ ইং, ৭ই কার্তিক, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ৩রা সফর, ১৪৩৯ হিজরী

You Are Here: Home » এক্সক্লুসিভ » খালেদার মামলার শুনানিকালে অসুস্থ আইনজীবীর মৃত্যু

খালেদার মামলার শুনানিকালে অসুস্থ আইনজীবীর মৃত্যু

আদালত প্রতিবেদক:

 

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে করা জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলার শুনানির সময় অসুস্থ ঢাকা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট টি এম আকবর মারা গেছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টার দিকে পুরান ঢাকার বকশীবাজারস্থ অস্থায়ী ঢাকার ৫ নম্বর বিশেষ আদালতে অসুস্থ হন তিনি। পরে বারডেম হাসপাতালে নেয়ার পর চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

জানা গেছে, বেলা সাড়ে ১১টার দিকে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে করা ওই মামলার অপর আসামি ঢাকা সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকার একান্ত সচিব মনিরুল ইসলাম খানের পক্ষে দুদকের উপ-পরিচালক নুর আহমেদের জেরা শুরু করেন আইনজীবী আকবর। জেরার এক পর্যায়ে তিনি অসুস্থতাবোধ করে ফ্লোরে পড়ে যান। দ্রুত সেখান থেকে বারডেম হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

আইনজীবী আকবরের অসুস্থ হওয়ার পর বিচারক ড. মো. আকতারুজ্জামান এজলাস থেকে নেমে যান এবং পরবর্তীতে মৃত্যুর খবর আসার পর আগামী ১২ অক্টোবর পর্যন্ত আদালত মুলতবি করেন।

এর আগে আজ মামলার প্রধান আসামি খালেদা জিয়া চিকিৎসার জন্য বিদেশে থাকায় তার পক্ষে সময়ের আবেদন করা হয়। পরে আদালত আবেদন মঞ্জুর করেন।

এর আগে গত ১৪ ও ২১ সেপ্টেম্বর সাবেক এ প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে জেরা করে আইনজীবী আমিনুল ইসলাম।

উল্লেখ্য, ২০১১ সালের ৮ আগস্ট খালেদা জিয়াসহ চারজনের বিরুদ্ধে ৩ কোটি ১৫ লাখ ৪৩ হাজার টাকা আত্মসাতের অভিযোগে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলাটি করে দুদক। মামলায় ২০১২ সালের ১৬ জানুয়ারি আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে দুদক।

মামলার আসামি বিএনপি নেতা হারিছ চৌধুরী এবং তার তৎকালীন একান্ত সচিব বর্তমানে বিআইডব্লিউটিএর নৌ নিরাপত্তা ও ট্রাফিক বিভাগের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক জিয়াউল ইসলাম মুন্না ও ঢাকা সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকার একান্ত সচিব মনিরুল ইসলাম খান।

অন্যদিকে এতিমদের জন্য বিদেশ থেকে আসা ২ কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৭১ টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগে জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলাটি করে দুদক। ২০০৮ সালের ৩ জুলাই রমনা থানায় মামলাটি করা হয়। ২০০৯ সালের ৫ আগস্ট দুদক আসামিদের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দাখিল করে।

চার্জশিটে খালেদা জিয়া, তার বড় ছেলে তারেক রহমান, সাবেক এমপি কাজী সালিমুল হক কামাল ওরফে ইকোনো কামাল, ব্যবসায়ী শরফুদ্দিন আহমেদ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সাবেকসচিব ড. কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ভাগ্নে মমিনুর রহমানকে আসামি করা হয়।

উভয় মামলায় খালেদা জিয়াসহ অপর আসামিদের বিরুদ্ধে ২০১৪ সালের ১৯ মার্চ তৎকালীন বিচারক বাসুদেব রায় চার্জগঠন গঠন করেন।

Tweet about this on TwitterShare on Google+Print this pageShare on LinkedInShare on Tumblr





© 2014 Powered By Sangshadgallery24.com

Scroll to top