রবিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং, ৭ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ২৪ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

You Are Here: Home » আন্তর্জাতিক » মোদির শপথ আজ

মোদির শপথ আজ

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ

নিজের দ্বিতীয় মেয়াদে এবং ভারতের ষষ্ঠদশ প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিতে যাচ্ছেন বিজেপি নেতা নরেন্দ্র দামোদর দাশ মোদি।

বৃহস্পতিবার (৩০ মে) সন্ধ্যায় ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লির রাষ্ট্রপতি ভবনে এ শপথ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে।

সদ্য শেষ হওয়া ভারতের সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোট নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করায় মোদি আবার আগামী চার বছর দেশ পরিচালনার সুযোগ পাচ্ছেন। দেশীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা ছাড়াও ভারত সরকারের ‘প্রতিবেশীই প্রথম’ নীতির প্রতিফলন হিসেবে জমকালো এ শপথ অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে বিদেশি রাষ্ট্রপ্রধানদেরও।

একমাত্র পাকিস্তান ছাড়া বিশেষভাবে আমন্ত্রণ পেয়েছেন ‘বে অব বেঙ্গল ইনিসিয়েটিভ ফর মাল্টি সেক্টরাল টেকনিক্যাল অ্যান্ড ইকোনমিক কো-অপারেশনের (বিমসটেক) অন্তর্গত দেশগুলোর রাষ্ট্রপ্রধানরা। এনডিটিভির খবর অনুযায়ী, এই শপথ অনুষ্ঠানে বিদেশি রাষ্ট্রপ্রধানদের মধ্যে উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ, শ্রীলংকার প্রেসিডেন্ট মাইথিরিপালা সিরিসেনা, মিয়ানমারের প্রেসিডেন্ট উ উইন মিন্থ, কিরগিজস্তানের প্রেসিডেন্ট সোরনবে জিনবেকভ, নেপালের প্রধানমন্ত্রী কে পি শর্মা ওলি, ভুটানের প্রধানমন্ত্রী ডা. লোটে শেরিং, মরিশাসের প্রধানমন্ত্রী প্রবিন্দ কুমার জুগনাউথ, থাইল্যান্ড সরকারের বিশেষ প্রতিনিধি গ্রিসাদা বুনরাক।

তবে বিদেশ সফরের কারণে এ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে পারছেন না বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এদিকে মোদির এই শপথ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে ভারতের বিরোধী দলগুলোকেও আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। এরই মধ্যে দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল, তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী চন্দ্রশেখর রাও আমন্ত্রণ গ্রহণ করেছেন। শপথ অনুষ্ঠানে যাবেন বলে জানিয়েছেন প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেসের সভাপতি রাহুল গান্ধি ও তার মা সোনিয়া গান্ধি।

একই সঙ্গে সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং ও সিনিয়র কংগ্রেস নেতা গোলাম নবী আজাদও আমন্ত্রণ গ্রহণ করেছেন। তবে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তো সাফ জানিয়ে দিয়েছেন তিনি শপথ অনুষ্ঠানে যাচ্ছেন না। আনন্দবাজার পত্রিকা জানায়, মঙ্গলবার রাতে মোদি ও বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ বৈঠক করে সিদ্ধান্ত নেন, গত ছয় বছরে পশ্চিমবঙ্গে খুন হওয়া বিজেপি কর্মীদের পরিবারের সদস্যদের শপথ অনুষ্ঠানে ‘বিশেষ আমন্ত্রিত’ হিসেবে রাখা হবে। এর পর পরই গতকাল এক টুইটে মমতা অভিযোগ করে বলেন, প্রধানমন্ত্রীর শপথগ্রহণের মতো একটি অনুষ্ঠানকে রাজনৈতিক ফায়দা হাসিলের হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করতে চাইছে একটি দল। তাই তিনি শপথ অনুষ্ঠানে যাচ্ছেন না।

Tweet about this on TwitterShare on Google+Print this pageShare on LinkedInShare on Tumblr





© 2014 Powered By Sangshadgallery24.com

Scroll to top